21 February, 2024
পদ কাকে বলে ?| পদ কয় প্রকার ও কী কী ?

পদ কাকে বলে ?| পদ কয় প্রকার ও কী কী ?

Q: পদ কাকে বলে ?

Ans: বাক্যে ব্যবহৃত বিভক্তিযুক্ত শব্দকে পদ বলা হয়।

পদ হচ্ছে একটি ভাষার রূপতত্ত্বগত শ্রেণীবিভাগ, যা সেই ভাষার বাক্যের নির্মাণ পদ্ধতি ও শব্দের সনাক্তকরণ, বিশ্লেষণ এবং অন্যান্য ভাষাগত গঠনের বর্ণনা করে। শব্দ যখন বাক্যে ব্যবহৃত হয় তখন তাকে পদ বলে। বাক্যে ব্যবহৃত প্রতিটি শব্দকেই এমন ভাবে বিভিন্ন শ্রেণীতে ভাগ করা যায়, যার জন্য প্রতিটি শব্দের মধ্যে সম্পর্ক ও তাদের অর্থ সৃষ্টি করে। বিভিন্ন ভাষায় বিশেষ্য পদ ও ক্রিয়াপদ প্রায়শ ব্যবহৃত পদ

পদ কাকে বলে ?| পদ কয় প্রকার ও কী কী

Q: পদ কয় প্রকার ও কী কী ?

Ans: পদ প্রধানত দুই প্রকার যথা- ১. নাম পদ ২. ক্রিয়াপদ 


Q: নাম পদ কাকে বলে ?

Ans: শব্দের সঙ্গে বিভক্তি যুক্ত হয়ে যে পথ গঠিত হয় তাকে নাম পদ বলে।


নাম পদের শ্রেণীবিভাগ :

নাম পদ চার প্রকার, যথা – 

  • বিশেষ্য 
  • বিশেষণ 
  • সর্বনাম 
  • অব্যয়।


বিশেষ্য কাকে বলে ?

যে পদের দ্বারা কোন ব্যাক্তি, বস্তু, জাতি, গুন, সমষ্টির নাম বোঝায় তাকে বিশেষ্য পদ বলে।

বিশেষ্য পদের উদাহরণ:


বিশেষণ পদ কাক বোলে উদাহৰণ দিয়া

বিশেষণ পদ কাকে বলে ?

যে পদের দ্বারা বিশেষ্য, সর্বনাম, ক্রিয়াপদের দোষ-গুণ, ভালো-মন্দ, পরিমাণ, অবস্থা ইত্যাদি বোঝায় তাকে বিশেষণ পদ বলে।

বিশেষণ পদের উদাহরণ:


সর্বনাম পদ কাকে বলে ?

বিশেষ্য পদের পরিবর্তে যে পদ ব্যবহার করা হয় তাকে সর্বনাম পদ বলে।

সর্বনাম পদের উদাহরণ:


অব্যয় পদ কাকে বলে ?

বাক্যে ব্যবহারের সময় যে পদগুলির কোনভাবেই পরিবর্তন হয়না তাকে অব্যয় পদ বলে।

অব্যয় কথার অর্থ হল- যা অপরিবর্তনীয় থাকে। যেমন- ‘বাঃ’ এই পদ কে কোন ভাবেই পরিবর্তন করা যায় না।


3 thoughts on “পদ কাকে বলে ?| পদ কয় প্রকার ও কী কী ?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *